ফুটেছে ফুল জারজ

ধরো নির্বাচনের পাতা
ধরো উড়ছে ভাষার বিষ
ধরো কুকুর পোষার সাধে
ধরো নিলাম হল পুলিশ

ছাই ঘর পোড়া অঙ্গারে
ওড়ে ওভারব্রিজের ডানা
পশু জবাই দেয়ার দিনে
দেখো মানুষ হচ্ছে ফানা

পেটা লোহায় কামারশালা
দেশ গড়ছে মনের মতো
কথা বলাটি এখানে মানা
বাড়ে উন্নয়নের ক্ষত

পশু জবাই দেয়ার দিনে
দেখো মানুষ হচ্ছে ফানা

ধরো সড়ক ভর্তি লাশ
ধরো ছেলের শোকে বিমূঢ়
ধরো মায়ের বুকটা চিরে
ধরো ছুটছে জাবেলা নূর

এদিন দুর্ঘটনারত
হাত হারিয়ে ফেলল জামা
ব্যথা মানিয়ে নিতে টাকার
ভান ধরল দোজখনামা

ওড়ে শ্বাসেরই পয়গাম
কার কাফন হচ্ছে কেনা
অথচ দাফন হচ্ছে কে
কে মেটায় সকল দেনা

পশু জবাই দেয়ার দিনে
দেখো মানুষ হচ্ছে ফানা

ধরো মাদ্রাসারই পাশে
ধরো ফুটেছে ফুল জারজ
ধরো মেয়েটির আনমনে
ধরো জামাটি ছিঁড়ছে রোজ

খুলে মসজিদ প্রাঙ্গণ
পড়ে নামাজ মুয়াজ্জিন
পাশে মেয়েটি কাঁদছে খুব
ধ্বনি আযানের হয় লীন

শিশুর হারানো পয়সায়
তুমি বেঁচে আছো অতটুকু
প্রাণ ঝরছে বিহ্বল
খোদা অনভ্যাসের রুকু

পশু জবাই দেয়ার দিনে
দেখো মানুষ হচ্ছে ফানা

ধরো লাল স্কুলের ছাদ
ধরো ফসকে যাওয়া হাত
ধরো মৌলবী হাওয়ায়
ধরো পুড়ে যায় নুসরাত

ভেঙে রাতের সুনসান
গন্ধে ভাসছে কেরোসিন
ধুলো বালিতে মিলেমিশে
মানুষ মরছে বাধাহীন

পুঁজি বাদ দিয়ে যোগ দিলে
বীজ মুমূর্ষু ফলসহ
লোক তন্ত্র ছাপিয়ে যায়
রাজনীতির সমারোহ

পশু জবাই দেয়ার দিনে
দেখো মানুষ হচ্ছে ফানা

ধরো বিধিভঙ্গের দিনে
ধরো আগুন নেভাতে মানা
ধরো পুড়ছে চকবাজার
ধরো প্রশাসন ছিল কানা

ফাটা পাইপের সার্কাসে
উড়ছে ব্যর্থতা কৌশলে
ঝুঁকে পড়ছে গন্ধ পোড়া
সবাই নাক বাঁচিয়ে চলে

কাঁটা ঘড়ির ফুরালে পথ
ইস্যু মানুষের বদলায়
রাত প্রগাঢ় সম্ভাষণে
ফুল নিজে থেকে ঝরে যায়

পশু জবাই দেয়ার দিনে
দেখো মানুষ হচ্ছে ফানা

ধরো হিন্দু ফুটছে ফুলে
ধরো ছিঁড়ে নিল সম্মান
ধরো মেয়েটি জামের শাখে
ধরো ঝুলছে সঙ বিধান

যেন পুকুর জুড়ে মাছের
ঘোরে জালেরই সন্দেহ
পানি ভাসছে জলের সাথে
তবু রক্ত ঝরায় লেহ

এই ঘাড় যতটা মাথার
বাবা মেয়ের লাশের পাশে
ভুল করছে নিতে শ্বাস
কাঁপে বাঘ হরিণের ত্রাসে

পশু জবাই দেয়ার দিনে
দেখো মানুষ হচ্ছে ফানা

ধরো মানুষ মানুষ ভাব
ধরো নিথর ফুলের দল
ধরো ছুরির ভাষা বোঝার
ধরো গড়িয়ে যাওয়া ফল

ক্ষত সামলে রাখে ব্যাধির
ভেজা খড়ের মুখে অতীত
যেন নিভিয়ে দেয় আগুন
শীতের অর্থহীন গীত

কাঁথা সেলাই করছে বুবু
হাওয়া বইছে অলক্ষুণে
কাটা পাতায় যত্নে থাকা
দাঁত পিঁপড়ের আনমনে

পশু জবাই দেয়ার দিনে
দেখো মানুষ হচ্ছে ফানা

◼ লেহ – জম্মু ও কাশ্মীরের জেলা শহর।

শুভ্র সরকার

শুভ্র সরকার

জন্ম:- ২৮ জানুয়ারি, খুলনা।

আগ্রহ- কবিতা

সম্পাদনা - সহ সম্পাদক, উচ্ছ্বাস (শিল্প-সাহিত্য বিষয়ক ছোট কাগজ, কলকাতা)

প্রকাশিত কবিতাগ্রন্থ-
ঈর্ষার পাশে তুমিও জুঁইফুল

ইমেইল- suvro280192@gmail.com

0 thoughts on “ফুটেছে ফুল জারজ

  • আহমাদ সালেহ
    July 12, 2019 at 5:20 am
    Permalink

    কবিতাটা টানা পড়লাম। খানিক ভিন্নতর সুর, ভিন্নতর আবহ.. ফুটে উঠেছে একরাশ মর্মবেদনা। তবে এই সময়ের কবিতায় প্রতিবাদের এই দৌর্বল্য হতাশাজনক, যতোটা এই কবিতার হৃদয় আমাকে স্পর্শ করলো, তারচে বেশি স্পর্শ করেছে এর অলঙ্কার।

    Reply

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *