প্রণয়ী (সনেটগুচ্ছ)

তোমার বিন্যস্ত কেশ বিনুনিতে কর রূপে বেণি
যখন তুমি বিকীর্ণ কর চুল মাথায় গুঁজো ফুল
কি বিন্যাস তোমার কালো কেশের মায়া প্রণয়িনী—
তোমায় লাগে অপরূপ মায়াবতী হরিণী অতুল—
তোমার মায়াবী চোখে ঝরে উষ্ণতা নিয়ে নির্ঝর
আমার চোখে তুমি প্রণয়িনী নিশ্চল বিঘ্নহারী—
তোমার বিস্ফারিত চোখে ভয়াতুর হই নির্ভর
প্রণয়ে ডুবে যাই আমি মোহনী দিই খেয়া পাড়ি—

তুমি ভয় ভাঙো প্রণয়িনী জাদুঠোঁটে কবির
তোমার কামরাঙা রস ঠোঁটে ঝরে মৃদু মৃদু হাসি—
ভয় ঝেড়ে ঝেড়ে তোমায় বলি ভালোবাসি ভালোবাসি
মৌরি আমি তোমার কামনায় হই চির অধীর—
রাতের আঁধারে খুলো তোমার মিহি মিহি ঘন চুল—
রাতে তোমার এলোচুলে গুঁজে দিই শিউলি ফুল।

এসো সাজাই তাসবি দানায় রাসুলের দুরুদ
প্রণয়ের খাম সাজাই প্রণয়ী দুরুদে দুরুদে—
মনখারাপের দিন দুরুদ হয়ে উঠুক প্রবোধ
মৈথুনহীন রাত যাক আমাদের নির্বিবাদে—
প্রণয়িনী ছল ভাঙো তুমি দুরুদেরও ভাষায়
বলি বিস্রস্ত হও তুমি ঢঙের ছল ভেঙে দিয়ে—
আমাকে ভাসাও প্রণয়ে দুরুদে স্বপ্ন আশায়
প্রণয়ে দোয়া মাসনুনে ছুটে চলো আমায় নিয়ে—

বিবাদের শব্দ ভেঙে দিয়ে মাগরিবের ছোট আযানে
মন বসাই তুমি আমি প্রণয়ের মাধুকরী মউজে—
এসো দুরুদের ভাষা জেনে যাই প্রেমে নির্বাণে
আমরা বুঝে যাব জোছনারাতে দুরুদ সহজে—
তোমার কণ্ঠে সুরেলা সুর আর উষ্ণতা ঝরবে—
আমাদের মনে কেবলই দুরুদ মনে পড়বে।

এখন গভীর রাত বৃন্ত খসে খসে পাতা ঝরে
এসময় তোমাকে কেবলই একাকী মনে পড়ে—
তোমার আমার মৌনতার নীরব রোদে পোড়া দিন
বৃষ্টিজল গড়ানির শব্দ টুপটাপ সুব্রত মীন—
নিষুপ্তি গভীর হয়ে আমার চোখে নেমে এলে
মনে পড়ে কত স্মৃতি কত রাত এসেছি ফেলে—
সন্ধ্যা গড়িয়ে রাত যত ঘন হয়, হয় গভীর
প্রণয়ী আমি হয়ে উঠি তোমার প্রণয়ে অধীর—

তুমি যত দূর থাকো মায়াবতী হাসিতেই দূরে
তোমার লাগি এ হৃদয় কেবলই দুঃখে পোড়ে—
তোমার ফিরে আসার টানে গাই প্রণয়ের গান
হেসে হেসে ভুলে যাই তোমার ঠুনকো অভিমান—
দীর্ঘ-ঘুমের কেটে যায় স্বপ্নেরও ভয়ার্ত ঘোর—
রাত কালো গিলাফ খুলে খুলে হয়ে উঠে ভোর।

বলি তুমি প্রণয়ের ভাষাটা বুঝে ফেলো সহজে
আত্মস্থ কর রুহজাগা জিকিরের প্রশান্ত রাত—
উঠুক কম্পন ঝড় উঠুক বুকে প্রেমের মউজে
গেয়ে ওঠো আজ জোছনারাতে রাসুলের নাত—
বলি তুমি দরবেশের ফানার ও-ঝাঁঝরা বুকে
চোখ হাঁটিয়ে নাও তুমি প্রণয় চোখে একবার—
দেখো তুমি দরবেশ নৃত্যরত আছে কত সুখে
প্রেম সুন্দর হয়ে উঠে যে জীবন হয় ফানার—

বলি তুমি প্রেমিকের ভাষা সহজে বুঝে নিলে
মৌন ভাষায় কর তুমি প্রেমের জমানো আলাপ—
বলি ধ্যান ভেঙে গেলে জিকিরে ক্বলবে একঢিলে
কর তুমি একা আরশকাঁপানো কান্না ও বিলাপ—
নিশুতি রাতে খুলে দাও ও-ফানার ঝাঁঝরা বুক—
আকাশ নেমে আসবে প্রশান্তিতে ওটাই তো সুখ।

তুমি বৃষ্টিভেজা দিনে দেখো শান্ত পদ্মভেজা নদী
কেমনে চলে ও-বৃষ্টিস্রোত ছলাৎ ছলাৎ করে—
জলের ভাষা সহজিয়া শান্ত, নেই তার তোষামোদি
বৃষ্টির দিনে ঈষৎ ভিজে তোমায় মনে পড়ে—
আকাশ থেকে বৃষ্টি যখন ঝমঝমিয়ে পড়ে
কল্পনায় কেবল ভাসতে থাকো তুমি আমি বৃষ্টি—
নদীতে গিয়ে আছড়ে পড়ি কি আমোদের দৃষ্টি
বৃষ্টির তুমুল শব্দে আমাদের অধর নড়ে—

বৃষ্টিভেজা বিকেলবেলায় তোমার ছটফটানি
ঘুমকাতুরে চোখদুটো দেখি সজাগ হয়ে যায়—
তোমার প্রণয় গানে দূর হয়ে যায় দুঃখ-গ্লানি
তোমার প্রণয় ঢঙে হৃদয় শুধু সতেজতা পায়—
বৃষ্টিভেজা দিনেই কেবল আমাদের হইচই—
বৃষ্টির ছন্দে মেতে উঠি কবিতায় লুকিয়ে রই।

দেখো আমাদের বাঁধা হলো এক প্রণয়ের ঘর
একাকী জীবন কাটে নির্মোহ মৃদু ভালোবাসায়—
আমরা হইনি কোনো কালে একে ওপরের পর
আমাদের ভাবনা আমাদের প্রণয়ে খুঁজে পায়—
জীবন যেন আমাদের এক আঠালো অক্টোপাস
সবুজের সজিবতা দেখো তুমি বৃক্ষকে হাসায়—
তুমি আমি ঘর বাঁধি শুধু দোঁহে প্রেমের আশায়
তোমার আমোদ দেখে উড়ে বনের শাদা শাদা কাশ—

জীবনের অথই মানে জেনেছি আমরা প্রণয়ে
জেনেছি জীবনের আবছায়া মানে অথই ঘোর—
আমাদের জীবন যায় প্রেমের অনুরাগে অভয়ে
জীবনের অথই মানে খোঁজে ফিরি সোনালি ভোর—
তুমি আমি ভেসে থাকি ভাবনার অতল তলে—
আমরা জীবন কাটাই আমোদে আমরা প্রেমির দলে।

এসো তোমার বিনুনি বেঁধে দিই আমি যত্ন করে
এসো প্রণয়ের খামে পুরে দিই মাসনুন ঠোঁট—
প্রণয়ীর ঘরে হবে বৃষ্টির দিনে কবির লোট
প্রণয়ী আমাকে আদরে জড়িয়ে নিবে অধরে—
এসো তোমার এলোচুলে গুঁজে দিই শিউলি ফুল
এসো তুমি দোয়া ঠোঁটের উষ্ণতা বিলাই জিকিরে—
বলি তোমায় ঈমনই আমাদের প্রণয়ের মূল
বিশ্বাস ভাঙি না তুমি আমি প্রণয়ে ছল করি কী করে—!

এসো তাহাজ্জুদের সিজদার কপালে মৃদু টোকা দিই
এসো ভাঙি জীবনের প্রণয় আর অথই মানে—
এসো একে ওপরের প্রণয়ের মউজটা নিই
আমাদের দেহ ভাঙি কেবল প্রেমের অনুদানে—
তুমি আমি কবিতার এক পঙক্তি কবিতা গান—
এই দেহে প্রণয় ভরা আমাদের নেই অভিমান।

হাসান মাহমুদ

জন্ম— ১ নভেম্বর—১৯৯৫, মৌলভীবাজার ।
আগ্রহ - কবিতা
পেশা— সাংবাদিকতা  (নির্বাহী সম্পাদক, দৈনিক সংলাপ বার্তা)
সম্পাদনা - সাহিত্য সাময়িকী  ছন্দপাতা। 
প্রকাশিত  কবিতাগ্রন্থ— সোনালি দিন ২০১৯ (ছন্দপাতা), দিয়া ২০২০ (ছন্দপাতা)
ইমেইল - kabbopatha@gmail.com

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: